শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৪:৪১ পূর্বাহ্ন

শিরোনামঃ
চলতি মাসেই চালু হবে সিরাজগঞ্জ এক্সপ্রেস ট্রেন-রেলমন্ত্রী সিরাজগঞ্জে ইলিশ সম্পদ উন্নয়ন ও ব্যবস্থাপনা প্রকল্পের আওতায় জেলা পর্যায়ের সেমিনার অনুষ্ঠিত বিশ্বনাথে ‘স্বপ্ন’র যাত্রা শুরু সলঙ্গায় সড়ক দুর্ঘটনায় এক পথচারীর মৃত্যু আওয়ামীলীগ বাংলাদেশের রাজনীতিতে সবসময়ই অত্যন্ত শক্তিশালী ও গুরুত্বপূর্ণ দল -কৃষিমন্ত্রী বিশ্বনাথে সাজাপ্রাপ্ত আসামি সুহেল গ্রেফতার বেলকুচিতে সরকারি জমি দখল করে অবৈধভাবে দোকান নির্মাণ কাজিপুরে বন্যায় রোপা আমন ধান তলিয়ে জাওয়ায় ১৩ হাজার ৩৭১ কৃষের কপালে ভাজ বিশ্বনাথে প্রতিপক্ষের হামলায় আহত – ১ উল্লাপাড়ায় ট্রাকচাপায় কলেজ ছাত্রসহ নিহত ২

চৌহালীতে ক্যাপ্টেন শেখ কামালের জন্ম দিবস পালিত

স্টাফ  রিপোর্টার:

আজ সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও শেখ ফজিলাতুন্নেছার জ্যেষ্ঠ পুত্র ক্রীড়া সংগঠক বীর মুক্তিযোদ্ধা শেখ কামালের ৭২তম জন্মবার্ষিকী। ১৯৪৯ সালের ৫ আগস্ট গোপালগঞ্জের টুঙ্গীপাড়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন তিনি।

১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট ২৬ বছর বয়সে বঙ্গবন্ধুর সঙ্গে সপরিবারে নিহত হন শেখ কামাল।

বঙ্গবন্ধুর বড় ছেলে শেখ কামাল বাংলাদেশ ছাত্রলীগের একজন নিবেদিত কর্মী ছিলেন। এই সংগঠনের সংগ্রামী, আদর্শবাদী কর্মী হিসেবে ‘৬৯-র গণঅভ্যুত্থান’ ও মহান মুক্তিযুদ্ধে বীরোচিত ভূমিকা পালন করেন।

১৯৭১ সালের ২৫শে মার্চ রাতে পাকহানাদার বাহিনী কর্তৃক বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক স্মৃতি-বিজড়িত ধানমন্ডির ৩২ নম্বর সড়কের ঐতিহাসিক বাসভবন আক্রান্ত হওয়ার পূর্ব মুহূর্তে বাড়ি থেকে বের হয়ে তিনি সরাসরি মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহণ করেন।

তিনি স্বাধীন বাংলাদেশে প্রথম ওয়ার কোর্সে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত হয়ে মুক্তিবাহিনীতে কমিশন লাভ করেন ও মুক্তিযুদ্ধের প্রধান সেনাপতি জেনারেল ওসমানির এডিসি হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন।

স্বাধীনতার পর শেখ কামাল সেনাবাহিনী থেকে অব্যাহতি নিয়ে লেখাপড়ায় মনোনিবেশ করেন। তিনি ছাত্রলীগ কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদের সদস্য ছিলেন।

বহুমাত্রিক অনন্য সৃষ্টিশীল প্রতিভার অধিকারী তারুণ্যের দীপ্ত প্রতীক শেখ কামাল শাহীন স্কুল থেকে মাধ্যমিক ও ঢাকা কলেজ থেকে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করার পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগ থেকে বি.এ. অনার্স পাস করেন।

তিনি ছায়ানটের সেতার বাদন বিভাগের ছাত্র ছিলেন। স্বাধীনতা উত্তর যুদ্ধ-বিধ্বস্ত বাংলাদেশের পুনর্গঠন ও পুনর্বাসন কর্মসূচির পাশাপাশি সমাজের পশ্চাৎপদ জনগোষ্ঠীর ভাগ্য উন্নয়নে সমাজ চেতনায় উদ্বুদ্ধকরণে থিয়েটার আন্দোলনের ক্ষেত্রে তিনি প্রথমসারির সংগঠক ছিলেন।

বন্ধু শিল্পীদের নিয়ে গড়ে তুলেছিলেন ‘স্পন্দন শিল্পী গোষ্ঠী’। শেখ কামাল ছিলেন ঢাকা থিয়েটারের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা। অভিনয় শিল্পী হিসেবে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের নাট্যাঙ্গনে প্রতিষ্ঠিত ছিলেন।

শৈশব থেকে ফুটবল, ক্রিকেট, হকি, বাস্কেটবলসহ বিভিন্ন খেলাধুলায় প্রচণ্ড উৎসাহ ছিল তার। তিনি উপমহাদেশের অন্যতম সেরা ক্রীড়া সংগঠন, বাংলাদেশে আধুনিক ফুটবলের প্রবর্তক আবাহনী ক্রীড়াচক্রের প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন।

শেখ কামাল দেশের নান্দনিক ফুটবল ও ক্রিকেটসহ অন্যান্য দেশীয় খেলার মানোন্নয়নে অক্লান্ত শ্রম দিয়ে অপরিসীম অবদান রেখেছিলেন। নতুন নতুন খেলোয়াড় সৃষ্টির লক্ষে প্রশিক্ষণ শিবির গড়ে তুলতেন এবং তাদের সাথে নিয়মিত অনুশীলন করতেন।

১৯৭৫ সালের ১৪ জুলাই খ্যাতিপ্রাপ্ত দেশবরেণ্য অ্যাথলেট সুলতানা খুকুর সাথে তার বিয়ে হয়। ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট শাহাদাত বরণের সময় তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সমাজবিজ্ঞান বিভাগের এম. এ শেষ পর্বের পরীক্ষার্থী ছিলেন এবং বাংলাদেশ কৃষক শ্রমিক আওয়ামী লীগের অঙ্গ-সংগঠন জাতীয় ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ছিলেন।

সিরাজগঞ্জের চৌহালীতে উপজেলা প্রশাসনের আয়জনে ৫ আগস্ট শহীদ শেখ কামালের শুভ জন্মদিন স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি মেনে যথাযথ মর্যাদায় পালন উপলক্ষ্যে বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা হয়।

৫ আগস্ট বৃহস্পতিবার শহীদ শেখ কামালের ৭২তম জন্মবার্ষিকী। দিবসটি যথাযথভাবে পালনের লক্ষ্যে স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিধি সকাল সাড়ে ১০টায় উপজেলা নির্বাহী অফিসারের কার্যালয়ে উপজেলা সহকারি কমিশনার(ভূমি) মাহিদ আল হাসানের সভাপতিত্বে শহীদ শেখ কামালের প্রতিকৃতিতে পুষ্পার্ঘ্য অর্পণ করে শ্রদ্ধা নিবেদন, আলোচনা সভা, কোরআনখানি, মিলাদ ও দোয়া মাহফিলের শেষে গাছের চারা বিতরণ করা হয় ।
এ সময় উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ ফারুক হোসেন সরকার, থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ রফিকুল ইসলাম, প্রকল্পবাস্তবায়ন অফিসার মজনু মিয়া, উপজেলা প্রকৌশলী(এলজিইডি) মোঃ শাখাওয়াত হোসেন,ঘোরজান ইউপি চেয়ারম্যান রমজান আলী, খাষকাউলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান শহিদুর রহমান শহীদসহ বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা কর্মচারি বৃন্দ উপস্থিত ছিলেন ৷

সংবাদটি শেয়ার করুন

© All rights reserved
error: Alert: Content is protected by Frilix Group